Published On: Fri, Dec 8th, 2017

কমলগঞ্জে মাদ্রাসা ও স্কুলের দুই ছাত্র নিখোঁজ

Share This
Tags

কমলগঞ্জ মৌলভীবাজার প্রতিনিধি
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ইসলামপুর ইউনিয়নের শ্রীপুর গ্রাম থেকে এক সপ্তাহ ধরে দুই ছাত্র নিখোঁজ রয়েছে। নিখোঁজ ছাত্রদের সন্ধান না পেয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুরে কমলগঞ্জ থানায় একটি সাধারন ডায়েরী করা হয়।বৃহস্পতিবার বিকালে ছাত্রদয় মাদ্রাসা ও স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে নিখোঁজ হয়।
এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) বিকাল ৩টায় শ্রীপুর গ্রামের কৃষক চেরাগ মিয়ার ছেলে মাধবপুর ইউনিয়নের নওয়াগাঁও তালিমুল কুরআন মাদ্রাসার ৫ম শ্রেনির ছাত্র মো: হাবিবুর রহমান(তারেক)(১১)মাদ্রাসা থেকে বাড়ি ফিরছিল। তবে ছাত্র হাবিবুর রহমান আর বাড়ি ফিরেনি। একইভাবে শ্রীপুর গ্রামের ছমদু মিয়ার ছেলে শ্রীপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির ছাত্র সাহিদ মিয়া(১০) স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে নিখোঁজ হয়।
এ ঘটনার পর থেকে টানা এক সপ্তাহ আত্মীয় স্বজনদের বাড়িসহ বিভিন্ন স্থানে খোঁজ করেও নিখোঁজ ছাত্রদ্বয়ের সন্ধান পাওয়া যায়নি। অবশেষে নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্র হাবিবুরের বাবা চেরাগ মিয়া ও স্কুর ছাত্র সাহিদের বাবা ছমদু মিয়া বৃহস্পতিবার দুপুরে কমলগঞ্জ থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী করেন।
নিখোঁজ মাদ্রাসা মাদ্রাসা ছাত্র হাবিবুরের বাবা চেরাগ মিয়া বলেন, নিখোঁজের সময় তার পরনে ছিল আকাশী রং-এর পাঞ্জাবি পায়জামা ও মাতায় সাদা টুপি ছিল। নিখোঁজ স্কুল ছাত্র সাহিদের বাবা ছমদু মিয়া বলেন, নিখোঁজের সময় তার পরনে ছিল নীল রং-এর স্কুল ড্রেস। দুজনই সিলেটী আঞ্চলিক ভাষায় কথা বলে। দুজনের উচ্চতা যথাক্রমে ৩ ও ৪ ফুট। নিখোঁজ হওয়ার পর থেকে অনেক খোঁজ করেও তাদের সন্ধান পাওয়া যায়নি বলেই বৃহস্পতিবার কমলগঞ্জ থানায় সাধারন ডায়েরী করা হয়েছে।
কমলগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) মো: নজরুল ইসলাম বলেন, দুই ছাত্র নিখোঁজের কথা শুনেছেন। থানায় পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিতভাবে অবহিত করা হয়। পুলিশ নিখোঁজ ছাত্রদের খুঁজতে তদন্ত শুরু করবে।

About the Author

-

%d bloggers like this: