Published On: Mon, Oct 26th, 2020

আগৈলঝাড়ায় শ্বশুর বাড়ি বেড়াতে এসে লাশ হলো যুবক

Share This
Tags
আঞ্চলিক প্রতিনিধি, বরিশাল। দুর্গা পুজায় স্ত্রীসহ শ্বশুর বাড়ি বেড়াতে গিয়ে লাশ হয়ে বাড়ি ফিরল পংকজ নামের এক যুবক। পংকজের রহস্যজনক মৃত্যুকে হত্যা বলে দাবি করছে পরিবার সদস্যরা। অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের ঘটনাস্থল পরিদর্শন। মর্গে প্রেরণের জন্য হাসপাতাল থেকে পংকজের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
জানা গেছে, গৌরনদী উপজেলার চন্দ্রহার গ্রামের প্রিয় লাল বৈদ্যর ছেলে পংকজ বৈদ্য (৩৫) রবিবার বিকেলে পুজা উপলক্ষে তার স্ত্রী মিতু বৈদ্যকে (২০) নিয়ে আগৈলঝাড়া উপজেলার বাহাদুরপুর গ্রামে শ্বশুর রবি হালদারের বাড়ি বেড়াতে আসে। রবিবার ভোর রাত সাড়ে চারটার দিকে পংকজ স্ত্রী মিতুর কাছে পানি খেতে চায়। স্ত্রী তাকে পানি এনে দিলে ওই পানি পান করার সময় সে অসুস্থ হয়ে পরে। তাৎক্ষনিক পংকজকে স্থানীয় পল্লী চিকিৎসক সুভাষ ভক্তর কাছে নিলে তিনি পংকজকে দ্রুত হাসপাতালে নেয়ার সিদ্ধান্ত দেন। তাৎক্ষনিক পংকজকে আগৈলঝাড়া উপজেলা হাসপাতালে নিলে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. ফয়সাল ফাহাদ চৌধুরী পংকজকে মৃত ঘোষণা করেন।
এদিকে পংকজের মা তারা রানী বৈদ্য সোমবার সকালে হাসপাতালে সাংবাদিকদের জানান, শ্বশুর পরিবারের সাথে পংকজের সু-সম্পর্ক ছিলা না। তার ছেলেকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে ।
গৌরনদী সার্কেলের অতিরিক্তি পুলিশ সুপার আব্দুর রব হাওলাদার হাসপাতালে গিয়ে পংকজের স্বজনদের সাথে কথা বলেছেন। পুলিশ পংকজের লাশ মর্গে প্রেরণ করেছে।

About the Author

-

%d bloggers like this: