Published On: Thu, Oct 5th, 2017

রোহিঙ্গাঁ মুসলমানদের অস্তিত্ব রক্ষায় এগিয়ে আসুন

Share This
Tags

আবদুল্লাহ আল নোমান বিশেষ প্রতিনিধিঃ
-ছারছীনার হযরত পীর ছাহেব কেবলার আহ্বান।
বাংলাদেশ জমইয়তে হিযবুল্লাহর আমীর ছারছীনার পীর ছাহেব আলহাজ্জ হযরত মাওলানা শাহ্ মোহাম্মদ মোহেব্বুল্লাহ (মা.জি.আ.) এক বিবৃতিতে বিপন্ন রোহিঙ্গাঁ মুসলমানদের অস্তিত্ব রক্ষা ও তাদের নিরাপদে নিজ এলাকা আরাকানের রাখাইন এলাকায় প্রত্যাবর্তন ও বসবাসের ব্যবস্থা নিশ্চিত করার জন্য জাতিসংঘ, সকল মানবাধিকার সংস্থা, ও.আই.সি সহ বিশ্ব নেতৃবৃন্দের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।
বিবৃতিতে পীর ছাহেব বলেন, আমাদের পার্শবর্তী দেশ মায়ানমারের আরাকান এলাকায় রোহিঙ্গা মুসলমান জনগোষ্ঠীর ওপরে সে দেশের সরকার ও সেনাবাহিনীর সহায়তায় বৌদ্ধ ধর্মান্ধরা যে পৈশাচিক অত্যাচার, নিপীড়ন ও গণহত্যা চালাচ্ছে তা অত্যন্ত ঘৃন্য ও নজির বিহীন। বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ, হত্যা, লুটতরাজ, নারী শিশু নির্বিশেষে নিরীহ মানুষদের নিজ বাড়িঘর ও শতশত বছর ধরে বসবাসস্থল থেকে উচ্ছেদের যে ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়ে যাচ্ছে তা মানবাধিকার দলনের এক জঘন্য পৈশাচিকতার দৃষ্টান্ত। আশ্চর্য্যরে বিষয় এই নিষ্ঠুরতা বন্ধের জন্য যে পদক্ষেপ নেয়া জরুরী বিশ্ব সংস্থা ও শান্তির ধ্বজাধারীরা তা করতে চরমভাবে ব্যর্থ হয়েছে। বাংলাদেশের পক্ষে একা এই পরিস্থিতি সামাল দেয়া সম্ভব নয়। তবুও মানবতার খাতিরে আমাদের সরকার যথাসাধ্য চেষ্টা করে যাচ্ছে। এহেন পরিস্থিতিতে রাজীনৈতিক, অরাজনৈতিক সকল সংগঠন ও সর্বস্তরের জনগনের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি যে ঃ-
(১) জাতিসংঘ, ও.আই.সি সহ শান্তিকামী বিশ্বের নেতৃবৃন্দ এগিয়ে আসুন। বাস্তুহারা রোহিঙ্গাঁ মুসলমানদের প্রয়োজনীয় আশ্রয়স্থল, খাদ্য ও চিকিৎসার ব্যবস্থা করুন।
(২) রোহিঙ্গাঁ মুসলমানরা যাতে তাদের নিজ বাসস্থানে স্বাধীনভাবে মর্যাদার সাথে নিরাপদে শান্তিতে বসবাস করতে পারে, বাস্তহারারা নিজ বাড়িঘরে ফিরে যেতে পারে তার নিশ্চয়তা বিধান করুন।
(৩) মায়ানমারের ঐ এলাকায় মুসলমানদের স্বতন্ত্র এলাকা তৈরি করে দেয়ার জন্য মায়ানমার সরকারকে বাধ্য করুন।
পীর ছাহেব কেবলা বাংলাদেশ জমইয়তে হিযবুল্লাহর নেতা কর্মীদের নির্দেশ দিয়ে বলেন ঃ-
(১) সরকার অনুমোদিত পন্থায় আশ্রয়হীন, খাদ্যহীন, অসুস্থ রোহিঙ্গাঁ মুসলমানগণ যতদিন না নিজ নিজ বাড়িঘরে নিরাপদে ফিরে যেতে পারছে ততদিন তাদের আশ্রয়, খাদ্য ও চিকিৎসার প্রয়োজনীয় আর্থিক সহায়তায় এগিয়ে যান।
(২) গণ সচেতনতা তৈরীর লক্ষে শান্তিপূর্ণ ভাবে উপজেলা, জেলা, বিভাগীয় শহর ও রাজধানীতে মানববন্ধনের ব্যবস্থা করুন।
(৩) নিয়মিত ভাবে দোয়ায়ে হাসবুনাল্লাহ ও দরূদে সাইফুল্লাহ পড়ে রোহিঙ্গাঁ মুসলমান ভাইবোনদের জন্য দোয়া ও মুনাজাত অব্যাহত রাখুন।

About the Author

-

%d bloggers like this: