Published On: Mon, Jun 17th, 2019

যুবলীগ নেতার প্রেমের প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় উজিরপুরে স্কুল ছাত্রীকে এসিড মারার হুমকি স্কুলে যাওয়া বন্ধ

Share This
Tags

আগৈলঝাড়া প্রতিনিধি ॥
বরিশালের উজিরপুরে দশম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে ২ বছর ধরে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করে আসছে উপজেলার গুঠিয়া ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি সুজন মোল্লা। যুবলীগ নেতার প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় শিক্ষার্থীকে এসিড নিক্ষেপ করে ঝলসে দেওয়ার হুমকি দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
ভয়ে ওই শিক্ষার্থীর বিদ্যালয়ে ও প্রাইভেট পড়তে যাওয়া আশা ৭ মাস ধরে বন্ধ । উপজেলার গুঠিয়া ইউনিয়নের বৈরকাঠি গ্রামে এ ঘটনায় এলাকা জুড়ে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। সুজন ক্ষমতাসীন দলের নেতা হওয়ায় তার বিরুদ্ধে ভয়ে অভিযোগ করতে পারছে না ভূক্তভোগী শিক্ষার্থী ও তার পরিবার।
ভুক্তভোগী ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গুঠিয়া ইউনিয়নের পঞ্চগ্রাম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এক শিক্ষার্থীকে গত ২ বছর ধরে স্কুলে যাওয়া-আসার পথে প্রেম প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করে আসছে একই গুঠিয়া ইউনিয়নের বৈরকাঠি গ্রামের হক মোল্লার ছেলে ৮নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি সুজন মোল্লা। ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী বলেন, সে স্থানীয় পঞ্চগ্রাম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ১০ম শ্রেণির ছাত্রী। নবম শ্রেনি থেকেই স্কুলে যাওয়া ও আসার পথে যুবলীগ নেতা সুজন মোল্লা তাকে প্রেমর প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করে আসছিলো। সুজনের উত্ত্যক্তের বিষয়টি বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের কাছে জানিয়ে কোনো সুফল না পেয়ে ৬ থেকে ৭ মাস আগে সে (শিক্ষার্থী) স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দেয়। (শিক্ষার্থী) বাবা-মা বিষয়টি ক্ষমতাসীন দলের স্থানীয় পর্যায়ের বিভিন্ন নেতাদের কাছে জানায়। কিন্তু তাতেও কোন সুফল হয়নি। যুবলীগ নেতা সুজন মোল্লার দলীয় নেতাকর্মীদের কাছে অভিযোগ দেওয়ায় (সুজন) আরও বেপরোয়া হয়ে ওঠে। এরপর তাদের (শিক্ষার্থী) বাড়িতে গিয়ে সুজন বিভিন্ন ধরনের হুমকি-ধামকি দেওয়া শুরু করে। শিক্ষার্থী আরও জানান, সুজনের হুমকিরকারনে ৯ম শ্রেনির বার্ষিক পরীক্ষার না দিয়ে পূর্ব মুহুর্তে তাকে (শিক্ষার্থী) ঢাকায় নিকট আত্মীয়র বাড়িতে চার মাস অবস্থান করে গ্রামে আসে। সম্প্রতি গত কয়েকমাস আগে বাড়িতে ফিরে স্কুলে যাওয়া শুরু করলে বখাটে সুজন আবারও তাকে (শিক্ষার্থী) উত্ত্যক্ত করে। পাশাপাশি তার (সুজন) সাথে প্রেমের সম্পর্ক স্থাপন না করলে তাকে (শিক্ষার্থী) এসিড ছুড়ে পোড়াবে বলে হুমকি দেয়। যুবলীগ নেতা সুজনের এমন হুমকির বিষয়টি বাবা-মা’কে জানালে পরিবার থেকে স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে বলে জানান ওই শিক্ষার্থী।
শিক্ষাথীর পিতা অভিযোগ করে বলেন, সুজন মোল্লা সরকার দলীয় লোক। সে অনেক প্রভাবশালী। তাই আমি ভয়ে আমার মেয়ের স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছি। সেই সাথে বিষয়টি মেয়ের স্কুল পরিচালনা কমিটি ও গুঠিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুর ছত্তার মোল্লার কাছে জানিয়েছি।
এব্যাপারে গুঠিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুর ছত্তার মোল্লার কাছে জানতে চাইলে, তিনি জানান বিষয়টি শিক্ষার্থীর পরিবার আমাকে জানিয়েছে। সুজনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
বিষয়টি নিয়ে উজিরপুর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মো: গিয়াস উদ্দিন বেপারি বলেন, ‘ঘটনাটি আমার জানা নেই। তবে সুজন এ ধরনের কর্মকান্ড করে থাকলে অবশ্যই তার বিরুদ্ধে দলীয়ভাবে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
অভিযুক্ত উপজেলার গুঠিয়া ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি সুজন মোল্লা বলেন, আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ এগুলো সবই মিথ্যা। ওই স্কুল ছাত্রী আমাকে ফাঁসাতে এ ধরনের অভিযোগ তুলেছে আমার বিরুদ্ধে।
উজিরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শিশির কুমার পাল জানান, আমি লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে অপরাধি যেই হোক তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
উজিরপুর উপজেলা নির্বাহি অফিসার (ইউএনও) মাসুমা আক্তার বলেন, এ বিষয়টি আমি শুনেছি। শিক্ষার্থী অথবা তার পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পেলে অভিযুক্তর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

About the Author

-

Leave a comment

XHTML: You can use these html tags: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

%d bloggers like this: